অধিনায়ক হিসেবে শেষ ম্যাচ খেলবেন মাশরাফি

0
67

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তিন ম্যাচ সিরিজের শেষ ওয়ানডেতে আজ মাঠে নামছে বাংলাদেশ। সিলেট আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুক্রবার দুপুর ২টায় শুরু হবে। ম্যাচটি সরাসরি সম্প্রচার করবে বিটিভি, গাজী টিভি ও স্টার স্পোর্টস সিলেক্ট ওয়ান।

এ ম্যাচের মধ্য দিয়ে অধিনায়ক হিসেবে বাংলাদেশের হয়ে শেষ ম্যাচ খেলবেন মাশরাফি। আর দারুণ এক রেকর্ড গড়ার হাতছানি বিদায়ী অধিনায়কের সামনে।

প্রথম দুই ম্যাচ জিতে সিরিজ নিশ্চিত করেছে বাংলাদেশ। তবে মাশরাফির নেতৃত্ব ছাড়ার ঘোষণার পরপরই এ ম্যাচটির গুরুত্ব যেন আরও বেড়ে গেল। দেশের সফল অধিনায়ক মাশরাফির নেতৃত্বের শূন্যতা অনুভব করবে মুশফিক-তামিমরা। তাইতো স্মরণীয় জয়ের মধ্য দিয়ে রাঙাতে চায় সতীর্থরা।

একই সঙ্গে এ ম্যাচ জিতলেই দেশের প্রথম অধিনায়ক হিসেবে ৫০তম ওয়ানডে জয় করবেন মাশরাফি। ওয়ানডে ক্রিকেটের ৪৯ বছরের ইতিহাসে এ রকম নজির গড়েছেন ২৪ জন অধিনায়ক। ২৫তম অধিনায়ক হিসেবে রেকর্ডের পাতায় নাম উঠবে চিত্রা নদীর পাড় থেকে উঠে আসা মাশরাফির নামও।

এ পর্যন্ত অধিনায়ক মাশরাফি বাংলাদেশের হয়ে ৮৭ ম্যাচে ৪৯ ওয়ানডে জিতেছেন। ফলে বিদায়ী ম্যাচে দারুণ এক মাইলফলকের সামনে দাঁড়িয়ে মাশরাফি। যদিও এমন মাইলফলক সামনে দাঁড়িয়ে মাশরাফি খুব একটা রোমাঞ্চিত নন, ‘মাইফলক আমার কাছে গুরুত্বপূর্ণ কখনোই গুরুত্বপূর্ণ ছিলো না। মাইফলকের চেয়ে বাংলাদেশের জয়টাই সবচেয়ে আমার কাছে গুরুত্বপূর্ণ।’

অধিনায়ক মাশরাফির শেষ ম্যাচে বাংলাদেশের একাদশে আসতে পারে বেশকিছু পরিবর্তন। শেষ ওয়ানডের স্কোয়াডে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে সৌম্য সরকারকে। ম্যাচের আগে চোটে পড়েছেন নাজমুল হোসেন শান্ত। আর তাই একাদশেও দেখা যেতে পারে সৌম্যকে।

অন্যদিকে শেষ ম্যাচে মুশফিকুর রহীমের খেলা নিয়েও শঙ্কা রয়েছে। কারণ, বিসিবি চায় সিরিজ নিশ্চিত হওয়ায় মুশফিকের পরিবর্তে যারা পাকিস্তান সফরে যাবেন তাদের দিয়ে একাদশ গড়তে। তাই একাদশে জায়গা পেতে পারেন নাঈম শেখ অথবা আফিফ হোসেন। অভিষেকের অপেক্ষায় রয়েছেন এ দুইজনই। দ্বিতীয় ম্যাচে মুস্তাফিজ ও সাইফউদ্দিনের পরিবর্তে সুযোগ দেওয়া হয় আল আমিন ও শফিউলকে। তবে দুইজনই সুযোগকে কাজে লাগাতে ব্যর্থ হন। তৃতীয় ম্যাচে একাদশে ফিরতে পারেন মুস্তাফিজ ও সাইফউদ্দিন। আজকের ম্যাচটি জিতলেই জিম্বাবুয়েকে টানা চতুর্থবার হোয়াইটওয়াশ করবে মাশরাফিরা।

বাংলাদেশ একাদশ (সম্ভাব্য) :

তামিম ইকবাল, লিটন কুমার দাস (উইকেটরক্ষক), সৌম্য সরকার, নাঈম শেখ/আফিফ হোসেন, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মোহাম্মদ মিঠুন, মেহেদী হাসান মিরাজ, মাশরাফি বিন মর্তুজা, তাইজুল ইসলাম, মুস্তাফিজুর রহমান ও সাইফউদ্দিন।

জিম্বাবুয়ে একাদশ ((সম্ভাব্য) :

শন উইলিয়ামস (অধিনায়ক), তিনাশি কামুনহুকামুই, ব্রেন্ডন টেইলর (উইকেটরক্ষক), সিকান্দার রাজা, রিচমন্ড মুতুম্বামি, রেজিস চাকাভা, ওয়েসলে মাধেভের, চার্লটন টিশুমা, তিনোটেন্ডা মুতোমবোদজি, ডোনাল্ড তিরিপানো ও চার্ল মুম্বা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here