দক্ষিণ তুরস্ক ভয়ংকরভাবে আগুনে  পুড়ছে

0
299

দক্ষিণ তুরস্ক ভয়ংকরভাবে আগুনে  পুড়ছে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : দক্ষিণ তুরস্কের বনে ভয়ংকরভাবে আগুনে  পুড়ছে । কৃষিমন্ত্রী সরকারি সংবাদসংস্থাকে বলেছেন, ১৩টি অঞ্চলে মোট ৪১টি জায়গায় দাবানল লেগেছিল। জুলাই ২৮ তারিখে বুধ এই আগুন লাগে। তার দাবি, অধিকাংশ জায়গায় দাবানল নিয়ন্ত্রণে, কিন্তু দুইটি শহরের কাছে এখনো দাবানল জ্বলছে। কারো কারো মতে তুরস্কের বিভিন্ন এলাকার বনাঞ্চলের ৬০ স্থানে আগুন লেগেছে। আগুন জ্বলছে টানা তিন দিন ধরে। বুধবার (২৮ জুলাই) অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হয়, শুক্রবারও তা নেভানো সম্ভব হয়নি। তবে কর্তৃপক্ষ বলছে, আগুন নিয়ন্ত্রেণে আনতে সক্ষম হয়েছে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা। অগ্নিকাণ্ডে চারজন  মারা গেছে।

৪ হাজার ফায়ার কর্মী আগুন নেভাতে তিনটি বিমান, ৩৮টি হেলিকপ্টার এবং শত শত ফায়ার ট্রাক ব্যবহার করে। আগুন নেভাতে গিয়ে ১৮০ কর্মী আহত হয়েছেন। কৃষিমন্ত্রী বেকির পাকদেমিরি বলছেন, আগুন ছড়িয়ে পড়ার আতঙ্কে আনাতোলিয়ার ৩০০ কিলোমিটার পশ্চিমে বদরাম এলাকার একটি ট্যুরিস্ট হোটেল খালি করে দেওয়া হয়েছে। হোটেলে  ইউরোপের বিভিন্ন দেশের পর্যটকরা ছিলেন।

এ সময়টাকে দাবানল সিজন বলা হলেও এ বছরের আগুনে নজিরবিহীন ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। বনাঞ্চলে গ্রামের পর গ্রামে আগুন ছড়িয়ে পড়েছে। গ্রামবাসী ঘরবাড়ি ছেড়ে নিরাপদে আশ্রয় নিয়েছেন।দক্ষিণ তুরস্কের এই আগুন পর্যটকদের মনে আতঙ্ক ধরিয়ে দিয়েছে। দেশটির কর্তৃপক্ষ অগ্নিকাণ্ডের দুর্ঘটনা তদন্ত শুরু করেছে।আবহাওয়াবিদরা বলছেন, বিশ্বের জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে এবার বিভিন্ন দেশেই দাবানল ভয়ংকর হয়ে উঠছে।

বনমন্ত্রী আরো কয়েকটি শহরের কাছে দাবানলের কথা বলেছেন। তবে তিনি জানিয়েছেন, কোনো শহরেই বিপদ হওয়ার সম্ভাবনা নেই। সেখানে কেউ মারা যাননি। কিন্তু তিনি সতর্ক করে বলেছেন, ”যদি হাওয়ার গতি পরিবর্তন হয়, তা হলে আমাদের বাড়তি সাবধানতা নিতে হবে।”