সাধারণ ছুটি ৫ মে পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে।

0
399

করোনা ভাইরাস বিস্তার রোধ করতে অধিকতর সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে আগামী ৫ মে পর্যন্ত নতুন ছুটির ঘোষণা দিয়েছে সরকার। অর্থাৎ আগামী ২৬ এপ্রিল থেকে ৫ মে পর্যন্ত আরও ১০ দিন ছুটি থাকবে। তবে এই ছুটি অন্য সাধারণ ছুটির মতো বিবেচিত হবে না। সন্ধ্যা ৬টার পর কেউ ঘরের বাইরে বের হতে পারবেন না। এ নির্দেশ অমান্য করলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এই সময়েও সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখতে হবে, পাশাপাশি দেশব্যাপী গণপরিবহনও বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। তবে, খাদ্যদ্রব্য, সড়ক ও নৌপথে সব ধরনের পণ্য, রাষ্ট্রীয় প্রকল্পের মালামাল, জ্বালানি, ওষুধ, ঔষধশিল্প, চিকিৎসাসেবা ও চিকিৎসা বিষয়ক সামগ্রী পরিবহন, শিশুখাদ্য, গণমাধ্যম, ত্রাণ পরিবহন, কৃষিপণ্য, শিল্পপণ্য, সার ও কীটনাশক, পশুখাদ্য, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ খাতের উৎপাদিত পণ্য, দুগ্ধ ও দুগ্ধজাত পণ্য এবং জীবনধারণের মৌলিক পণ্য উৎপাদন ও পরিবহন- এ নিষেধাজ্ঞার আওতামুক্ত থাকবে। এ ক্ষেত্রে পণ্যবাহী যানবাহনে যাত্রী পরিবহন করা যাবে না।

গত ৮ মার্চ প্রথম করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী পাওয়ার পর গত ২৬ মার্চ থেকে ৪ এপ্রিল এবং পরে ৫ থেকে ৯ এপ্রিল, এরপরে ১৪ এপ্রিল এবং সর্বশেষ ২৫ এপ্রিল পর্যন্ত ছুটি বাড়ানো হয়েছিল। এই সাধারণ ছুটিতে গণপরিবহন ছাড়াও জরুরি সেবায় নিয়োজিত ছাড়া সব ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। পাশাপাশি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে ১৮ মার্চ থেকে।