রোহিঙ্গা ক্যাম্পে দুই র‌্যাব-১৫ সদস্য গুলিবিদ্ধ

0
441

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে দুই র‌্যাব-১৫ সদস্য গুলিবিদ্ধ

দখিনা ডেস্ক: ৩০ ডিসেম্বর সোমবার বিকেলে ইয়াবা বিরোধী অভিযানে কক্সবাজার জেলার টেকনাফের হ্নীলা ইউনিয়নের নয়াপাড়া রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্পে গুলিবিদ্ধরা হলেন- র‌্যাব সদস্য সৈনিক ইমরান ও কর্পোরাল শাহাব উদ্দিন। 

 

র‌্যাব-১৫ সূত্রে জানা যায়,বিকেলে নয়াপাড়া শরণার্থী শিবিরে মাদক বিরোধী অভিযানে যায় র‌্যাবের একটি দল। এ সময় র‌্যাব সদস্যদের লক্ষ্য করে সন্ত্রাসীরা গুলি চালিয়ে ক্যাম্প সংলগ্ন পাহাড়ের দিকে পালিয়ে যায়। এতে দুই র‌্যাব সদস্য গুলিবিদ্ধ হয়। তাদের উন্নত চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রামের সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচে) পাঠানো হয়েছে । কক্সবাজার র‌্যাব-১৫ এর অধিনায়ক উইং কমান্ডার আজিম আহমেদ সাংবাদিকদের বলেন, ‘র‌্যাবের সঙ্গে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে একটি ঘটনা ঘটেছে।

রোহিঙ্গা ক্যাম্প সূত্রে জানা যায়, টেকনাফ উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের নয়াপাড়া, মৌচনী, শালবাগান, জাদিমুড়া, লেদা রোহিঙ্গা ক্যাম্পগুলো রোহিঙ্গা অপরাধীদের অভয়ারণ্যে পরিণত হচ্ছে। এসব ক্যাম্পগুলোতে ইয়াবা কারবার, সন্ত্রাসী, ডাকাতি, অপহরণ কর্মকাণ্ড হরহামেশা ঘটেই চলছে। বিভিন্ন সময়ে র‌্যাব, পুলিশ, বিজিবি সেখানে অভিযান চালিয়ে রোহিঙ্গা ডাকাত ও সন্ত্রাসীদের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটেছে। এতে এ পর্যন্ত ৫৪ জন রোহিঙ্গা ডাকাত, সন্ত্রাসী ও ইয়াবা কারবারি নিহত হয়েছে।

 

নয়াপাড়া মৌচনী রোহিঙ্গা ক্যাম্পের এক যুবক বলেন, এখানে বেশ কয়েকটি রোহিঙ্গা স্বশস্ত্র গোষ্ঠী রয়েছে। তারা ক্যাম্প ভিত্তিক ইয়াবা কারবার নিয়ন্ত্রণসহ বিভিন্ন ধরনের অপরাধ কর্মকাণ্ড চালাচ্ছে। তাদের কাছে প্রচুর অস্ত্র মজুদ আছে বলে আমাদের ধারণা। সাধারণ রোহিঙ্গারা তাদের ভয়ে মুখ খুলতে পারে না।ক্যাম্পের ওই যুবক আরো বলেন, সন্ত্রাসীরা যেখানে দিনের আলোতে র‌্যাবের ওপর গুলি চালিয়েছে, সেখানে আমাদের মতো সাধারণ রোহিঙ্গারা খুব আতঙ্কে রয়েছি।